মৃত্যুর গল্প, জন্মের মৃত্যু

অপূর্ব চৌধুরী

৮ জুলাই, ২০২০ , ৩:১১ অপরাহ্ণ ; 660 Views

মৃত্যুর গল্প, জন্মের মৃত্যু

বছরে কত লোক মারা যায় গোটা পৃথিবীতে ? ৬৫ মিলিয়নের মতো । বছরে কতগুলো মানুষের বাচ্চা জন্ম গ্রহণ করে ? ঠিক তার ডাবল – ১৩০ মিলিয়নের মতো ।

প্রতি মিনিটে এই পৃথিবীতে জন্মগ্রহণ করে ২৫০ টি শিশু । প্রতি মিনিটে কত জন মানুষ মারা যায়, জানেন ? প্রায় ১২০ জন ।

প্রতি ঘন্টায় মানুষ মারা যায় প্রায় সাড়ে সাত হাজার । প্রতিদিন গোটা পৃথিবীতে মরে যায় প্রায় পৌনে দুই লক্ষের মতো । তার মানে যে বাক্যটি পড়ছেন, যে শব্দটি পড়ছেন, সেটি পড়তে যদি এক সেকেন্ড লাগে, সেই এক সেকেন্ডে পৃথিবীতে ২ জন মানুষ মারা যাচ্ছে ।

জন্মটা আবার ঠিক তার বিপরীত । প্রতি সেকেন্ডে জন্মে চারজনের বেশি । প্রতি সেকেন্ডে মরে যায় ২ জন । তার মানে – প্রতি সেকেন্ডে পৃথিবীতে মানুষ বেড়ে যায় ২ জন বেশি ।

রাতের খাবার শেষে হেঁটে এসে ক্লান্ত শরীর নিয়ে শুয়ে পড়েছিলাম । কি করে যেন ঘুম ভেঙে গেলো । কেন ভেঙে গেলো জানি না । হঠাৎ মনে হলো – জন্মটা কত সহজ, কারণ, জন্মের সময়টি বুঝের আওতায় থাকে না । যা দেখি না, তার সহজ কঠিনের হিসেবে জানা থাকে না, কিন্তু মৃত্যুটি থাকে । মৃত্যুটি নিজ হাতে যেন দেখতে পাই, মৃত্যুর কাছাকাছি টা নিজেরাই দেখতে পাই । নিজেদের জন্ম নিজেরা দেখি না, কিন্তু মৃত্যুটি যেন দেখি । মৃত্যুর কাছাকাছি বসে থেকে নিজেদের দেখতে পাই ।

উঠে চা বানালাম । হারবাল টি । সাথে ডার্ক চকলেট । অনেকসময় লেখা একটি ভালো ওষুধ । লিখতে লিখতে ঘুমিয়ে যাই ।

লিখতে বসলাম মৃত্যু নিয়ে ।

প্রথম প্যারাটি লিখে ফোনের স্টপ ওয়াচ ধরে পরীক্ষা করে দেখলাম – উপরের প্যারাগ্রাফের শুরুর শব্দ ‘বছর’ থেকে শেষের শব্দ ‘২ জন’ পড়তে সময় লেগেছে ৪৮ সেকেন্ড । হিসেবে করলাম, ততক্ষণে ১৯২ জন শিশু পৃথিবীতে এসে গেছে, ৯৬ জন মানুষ পৃথিবীর কোথাও না কোথাও মরে গেছে । পাশে আরো নতুন ৯৬ জন মানুষ যুক্ত হয়েছে । অদ্ভুদ এক জীবন চক্র ।

সংখ্যাগুলোর ভগ্নাংশ হিসাব না লিখে মোটা দাগের একটি পূর্ণ সংখ্যা লিখবো হিসাবগুলো সহজে বুঝতে ।

পৃথিবীতে সবচেয়ে বেশি মানুষ মারা যায় হার্টের সমস্যার কারণে । প্রায় ১৮ মিলিয়ন মানুষ । এরপরে সবচেয়ে বেশি মারা যায় ক্যান্সারে । সকল ধরনের ক্যান্সারে প্রতি বছর মারা যায় ১০ মিলিয়নের মতো । তৃতীয় মৃত্যুর কারণ ফুসফুসের সমস্যা । ফুসফুস রোগের কারণে বছরে প্রায় ৬ মিলিয়ন মানুষ মারা যায় ।

চতুর্থ মৃত্যুর কারণটি খুব ইন্টারেস্টিং । অনেকে ভাবতেই পারবেন না । কারণ, হিসেবগুলো একজায়গায় না করলে এমন মজার জিনিসগুলো চোখে পড়ে না । চতুর্থ যে কারণে বছরে প্রায় তিন মিলিয়নের কাছাকাছি মানুষ মারা যায় তা হলো – Dementia । এটির মানে হলো – স্মৃতিভ্রংশ রোগ !

এর পরে পঞ্চম, ষষ্ট, সপ্তম এবং অষ্টমে আছে যথাক্রমে : পেটের সমস্যা, ডায়াবেটিস, লিভার এবং কিডনির রোগে । প্রতিটিতেই এক মিলিয়নের বেশি থেকে দুই মিলিয়নের বেশি মারা যায় ।

নবম মৃত্যুর কারণ – সড়ক দুর্ঘটনা । রোড একসিডেন্টে বছরে মারা যায় ১.২ মিলিয়নের মতো । দশম, একাদশে আছে : যক্ষা রোগে ১ মিলিয়নের মতো এবং তার পরেই এইডস রোগে মারা যায় এক মিলিয়নের চেয়ে কম প্রতি বছরে ।

বছরে ৮ লক্ষ মানুষ সুইসাইড করে পৃথিবীতে । সামাজিক বা কোনো কারণে বছরে ৬ লক্ষ মানুষকে মেরে ফেলা হয় । প্রথমটা Suicide, পরেরটাকে বলে Homicide ।

বছরে তিন লক্ষ মানুষ পানিতে ডুবে মারা যায়, কিন্তু না খেয়ে পুষ্টির অভাবে মারা যায় আড়াই লক্ষ মানুষ । যদিও পুষ্টির অভাবজনিত মৃত্যুর হিসেবটি একটু গড়বড় আছে হয়তো ।

শুধু অত্যাধিক মদ খেয়ে মারা যায় দেড় লক্ষের উপরে । আবার ভুল কিংবা বেশি ওষুধ খেয়ে মারা যায় দেড় লক্ষের কম ।

পৃথিবীর বিভিন্ন অঞ্চলে কোনো না কোনো যুদ্ধ লেগেই আছে । এইসব যুদ্ধে বছরে মারা যায় প্রায় এক লক্ষ পঁচিশ হাজারের মতো । অন্যদিকে আগুন লেগে বছরে মারা যায় এক লক্ষের বেশি মানুষ ।

আত্মহত্যা নয়, কিন্তু ভুল করে অথবা খাদ্যের বিষ ক্রিয়ায় বছরে সত্তর হাজারের বেশি মানুষ মারা যায় । গরম কালে গরমে পুড়ে এবং শীতকালে শীতে জমে প্রায় পঞ্চাশ হাজারের বেশি মানুষ প্রতিবছর মারা যায় ।

দ্বিতীয় সবচেয়ে কম মানুষ মারা যায় কিসে – জানেন ? উত্তরটি বলার আগে একটা সূত্র দেই যে, বছরে কোন খবরটি সবচেয়ে বেশি জুড়ে থাকে কাগজে ! উত্তর হলো – টেরোরিজম । ওর্য়াল্ড টেরোরিজম । পৃথিবী জুড়ে বিভিন্ন টেরোরিস্ট সংগঠনের কথা, বিশেষত এই শতকে মুসলিমদের বিরুদ্ধে পশ্চিমের অযথা বিদ্বেষ এবং বিষেদগার ভরা নিউজ অত্যাধিক থাকে । পানিতে ডুবেও যত মানুষ মারা যায় পৃথিবীতে প্রতি বছর, টেরোরিস্টদের হাতে মারা যায় তার দশ ভাগের এক ভাগ মাত্র । প্রতিবছর যে কোনো ধরনের টেরোরিজমের কারণে মাত্র পঁচিশ হাজার মানুষ মারা যায় সারা পৃথিবীতে । অথচ লিড খবরের এক চতুর্থাংশ এই পশ্চিমা মিডিয়ার তৈরী নিউজ হিসাবে থাকে টেরোরিস্টদের কর্মকান্ডের খবর !

সবচেয়ে কম মারা যায় কিসে ? ভাবুন তো মনে মনে । জানি, মাথায় আসবে না । সবচেয়ে কম মানুষ মারা যায় প্রাকৃতিক দুর্ঘটনা : ঝড়, ভূমিকম্প, সাইক্লোন কিংবা বন্যার কারণে ! এসব কারণে মারা যায় মাত্র দশ হাজারের মতো বছরে ।

পৃথিবীতে এখন মানুষ আছে আট বিলিয়নের কাছাকাছি ।

বারো মাসে সারা পৃথিবীতে মানুষ মারা যায় ৬৫ মিলিয়ন । জুলাই মাসের আজকে পর্যন্ত ২১৬ টি দেশে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন – পাঁচ লক্ষের বেশি । হয়তো বাকি ছয় মাসে আরো পাঁচ লক্ষ মারা যেতে পারে । বারো মাসে করোনার কারণে মৃত্যু গিয়ে দাঁড়াবে দশ লক্ষ বা ১ মিলিয়ন মাত্র ।

৬৫ মিলিয়ন মৃত্যুকে স্বাভাবিক ধরে ১ মিলিয়ন মৃত্যুকে থামাতে ৮ বিলিয়ন মানুষের জীবন স্তব্দ হয়ে আছে ।

সূত্র

1. The Lancet : The Global Burden of Diseases Study
2. World in Data : Cause of Death by Hannah Ritchie & Max Roser
3. WHO – World Health Organization
4. Scientific American

মৃত্যুর গল্প, জন্মের মৃত্যু 1
Latest posts by অপূর্ব চৌধুরী (see all)
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •