মুগ্ধতা.কম

২৭ জুন, ২০২০ , ৮:২৩ অপরাহ্ণ ; 309 Views

রঙ

আকাশ আহমেদের কবিতা - রঙ

আমি যখন জন্ম নিলাম, তখন আমি কালো!

তুমি যখন জন্ম নিলে, তখন তুমি গৌর বর্ণের।

আমি যখন কান্না করি, তখনো আমি কালো!

তুমি যখন কান্না করো, তখন তুমি লালচে।

আমি যখন মায়ের কোলে, তখন আমি কালো!

যখন তুমি মায়ের কোলে, তখন তুমি দুধে আলতে।

আমি যখন হাসতে শিখি, তখন আমি কালো!

যখন তুমি হাসতে শেখো, তখন তুমি সুন্দর।

আমি যখন হাঁটতে শিখি, তখনো আমি কালো!

যখন তুমি হাঁটতে শেখো, তখন তুমি অপূর্ব নীল বর্ণের।

আমি যখন রোদে পুড়ি, তখন আমি কালো!

যখন তুমি রোদে দাঁড়াও, তখন তুমি রাঙা রক্ত।

আমি যখন বৃষ্টিতে ভিজি, কখনো আমি কালো!

যখন তুমি বৃষ্টির ছোঁয়ায়, তখন তুমি মুগ্ধ মনি মুক্ত।

যখন আমার বয়স বাড়লো, তখনো আমি কালো!

যখন তোমার বয়স বাড়লো,তখন তুমি হালকা হলুদ বর্ণ।

যখন আমি বৃদ্ধ হলাম, তখনো আমি কালো!

যখন তুমি বৃদ্ধকালে, তখন তুমি একটু শ্যামল শীর্ণ।

যখন আমি নিথর হলাম, তখনো আমি কালো!

যখন তুমি খাটে বদ্ধ, তখনো তুমি সাদাই।

যখন আমায় বিদায় দিল, তখনো আমি কালো!

যখন তুমি নিলে বিদায়!

তখনও তুমি রয়ে গেলে গৌরবর্ণের শীতলতায়।

অথচ,

আমরা যখন জননীর জঠরে ছিলাম,

তখন আমাদের কোন রঙ ছিলোনা, ছিলোনা কোন বিভেদ!

যখন আমাদের আগমন হলো পৃথিবীর বুকে,

তখন আমাদের কোন পোশাক ছিলোনা, ছিলনা কোন পোশাকের পার্থক্য।

ধীরে ধীরে তুমি হয়ে উঠলে সকলের প্রিয় পরিজন।

আর আমি কুৎসিত কোন অযাচিত অবহেলিত মানব।

আমাদের যতটুকু পার্থক্য সবটুকুই কেবল বাহিরে,

ভিতরে আমাদের কোন তফাৎ নেই, নেই কোন সৌন্দর্য সীমারেখার দাগ।